Saturday , May 8 2021
Breaking News
Home / খবর / সাতক্ষীরায় কুকুরের কামড়ে এক মাসে অর্ধশত গরু-ছাগলের মৃত্যু

সাতক্ষীরায় কুকুরের কামড়ে এক মাসে অর্ধশত গরু-ছাগলের মৃত্যু

সাতক্ষীরায় কুকুরের কামড়ে

Kbdnews ডেস্ক: সাতক্ষীরার আশাশুনি উপজেলার বড়দল ইউনিয়নে বেওয়ারিশ একদল পাগলা কুকুরের আক্রমণে গত এক মাসের ব্যবধানে অর্ধশত গরুর বাছুর, ছাগল ও ভেড়ার মৃত্যু হয়েছে। এলাকাবাসী কুকুরের ভয়ে ছাগল-ভেড়াসহ গবাদি পশু মাঠে ছাড়তে সাহস পাচ্ছেন না। ফকরাবাদ গ্রামের বাসিন্দা শরিফুল ইসলাম জানান, গত একমাস ধরে বিভিন্ন সময়ে বড়দল ইউনিয়নের বুড়িয়া, ফকরাবাদ, গোয়ালডাঙ্গা, জেলপাতুয়া, বামনডাঙ্গা, ডুমুরপোতা, নড়েরাবাদ, জামালনগরসহ পার্শ্ববর্তী এলাকার বিভিন্ন বিলে ২০-২৫টি বেওয়ারিশ পাগলা কুকুর ঘোরাফেরা করছে। এসব কুকুর বিলের মধ্যে ঘাস খাওয়ার জন্য ছেড়ে দেয়া গরুর বাছুর, ছাগল, ভেড়া ধরে কামড়ে মেরে ফেলছে। এ সময় কুকুর ওই পশুর পেটের চামড়া ছিঁড়ে ফেলে অল্প একটু মাংস খেয়ে সেটি ফেলে রেখে আবার আরেকটির ওপর আক্রমণ করছে। এভাবে গত একমাসের ব্যবধানে ওই এলাকায় কুকুরের কামড়ে অর্ধশত গরুর বাছুর ও ছাগল-ভেড়ার মৃত্যু হয়েছে।
সাতক্ষীরায় কুকুরের কামড়ে
তিনি আরও জানান, এ অবস্থা দেখে স্থানীয়রা তাদের গবাদিপশু ঘাস খাওয়ার জন্য বিলে ছাড়তে সাহস পাচ্ছে না। এমনকি এসব বেওয়ারিশ পাগলা কুকুরের ভয়ে ওই এলাকার সাধারণ মানুষও বিলে যেতে ভয় পাচ্ছেন। এ ব্যাপারে বড়দল ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) চেয়ারম্যান আবদুল আলিম মোল্যা জানান, একাধিক ব্যক্তির মাধ্যমে তিনি এ খবর জানতে পেরেছেন। কিন্তু পশু মারার ক্ষেত্রে বিধিনিষেধ থাকায় তিনি বিষয়টি প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরসহ ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করেছেন। আশা করছি দ্রুত এসব বেওয়ারিশ পাগলা কুকুর নিধনে ব্যবস্থা নেয়া হবে। এ বিষয়ে জানতে আশাশুনি উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তার মোবাইল ফোনে একাধিকবার যোগাযোগের চেষ্টা করা হলেও তিনি ফোন রিসিভ করেননি। আশাশুনি উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) নাজমুল হুসেইন খান জানান, বিষয়টি নিয়ে উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তার সঙ্গে আলোচনা করে দ্রুত প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

Check Also

খুলনা রিপোর্টার্স ক্লাবের উদ্যোগে দোয়া ও ইফতার অনুষ্ঠিত

খুলনা রিপোর্টার্স ক্লাবের উদ্যোগে দোয়া ও ইফতার অনুষ্ঠিত

বি এম রাকিব হাসান, খুলনা ব্যুরোঃ- পবিত্র মাহে রমজান উপলক্ষে খুলনা রিপোর্টার্স ক্লাবের দোয়া ও …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *