Thursday , October 1 2020
Breaking News
Home / খবর / প্রতিবেশির বাড়িতে ভাঙচুর করতে বাধা দেওয়ায়,,, মেহেরপুর আশরাফপুরে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে জখম॥ লক্ষাধিক টাকা ছিনতাই

প্রতিবেশির বাড়িতে ভাঙচুর করতে বাধা দেওয়ায়,,, মেহেরপুর আশরাফপুরে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে জখম॥ লক্ষাধিক টাকা ছিনতাই

প্রতিবেশির বাড়িতে
মেহেরপুর প্রতিনিধি ঃ প্রতিবেশির বাড়ি ভাঙচুর করতে নিষেধ করায়

ক্ষিপ্ত হামলাকারীদের হাতে মারাত্মক জখম হয়েছেন নাজাত আলী (৪২) নামের এক ব্যক্তি। ঘটনাটি ঘটেছে গেল শনিবার সন্ধ্যার দিকে মেহেরপুর সদর উপজেলার আশরাফপুর গ্রামের পশ্চিমপাড়ায়। এ ঘটনায় নাজাত আলী বাদী হয়ে ১৪/১৫ জনকে আসামী করে মেহেরপুর সদর থানায় একটি মামলা করেছেন নাজাত আলী।
মামলার বাদী আশরাফপুর গ্রামের পূর্বপাড়ার আবেদ আলীর ছেলে নাজাত আলী (৪২)। তিনি জানান- একদল সন্ত্রাসী ঘটনার দিন বিকেলে তার প্রতিবেশি মৃত মাদার আলীর ছেলে মোঃ হোসেন আলীর বাড়িতে প্রবেশ করে বাড়ির চেয়ার-টেবিল ও বাড়ির গেট ভাঙচুর করতে থাকে। এ সময় তিনি তাদের এহেন কাজ করতে নিষেধ করেন। এতে তারা ড়্গিপ্ত হয় এবং সন্ধ্যার দিকে গ্রামের পশ্চিমপাড়ায় তার বাইসাইকেলের গতিরোধ করে একই গ্রামের আতাহারের ছেলে মোঃ খোকন ওরফে বেকা, মৃত সাব্দার আলীর ছেলে মোঃ সাধু, মৃত জিনারম্নলে ২ ছেলে মোঃ সমর ও মোঃ বাবু, মোঃ উড়ানের ২ ছেলে রিটু ও মিঠু এবং মোঃ কিতাব আলীর ছেলে মোঃ মনি সহ অজ্ঞাত আরো ৭-৮ জন তার মাথা ও ঘাড়সহ সমসত্ম শরীরে কিল-ঘুষি দিয়ে মারাত্মক আহত করে এবং তার পকেটে থাকা গরম্ন-মোষ বিক্রির ১০৪০০০/- (এক লাখ চার হাজার) টাকা ছিনিয়ে নেয়। এসময় তার হাক-চিৎকারে প্রতিবেশিরা তাকে উদ্ধার করে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে রেফার করেন।
এঘটনায় নাজাত আলী বাদি হয়ে উলিস্নখিত ব্যক্তিসহ আরো ৭/৮ জনকে আসামী করে মেহেরপুর সদর থানায় একটি মামলা করেছেন। মামলার তদনত্মকারী কর্মকর্তা হলেন- সদর থানার সেকেন্ড অফিসার এস.আই আহসান হাবিব।

 

Check Also

গাংনীতে লাইসিয়াম

গাংনীতে লাইসিয়াম বিদ্যালয়ে সমস্যা সমাধানে উপজেলা চেয়ারম্যানের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত।

আমিরুল ইসলাম অল্ডাম: মেহেরপুরের গাংনী পৌর শহরের চৌগাছা গ্রামে প্রতিষ্ঠিত ইংলিশ ভার্সন লাইসিয়াম মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *