Thursday , September 24 2020
Breaking News
Home / বাংলাদেশ / করোনাভাইরাসে ২৪ ঘণ্টায় ৪৬ জনের মৃত্যু,, আক্রান্ত সর্বোচ্চ ৩,৪৭১ জন

করোনাভাইরাসে ২৪ ঘণ্টায় ৪৬ জনের মৃত্যু,, আক্রান্ত সর্বোচ্চ ৩,৪৭১ জন

করোনাভাইরাসে

স্টাফ রিপোর্টার  : দেশে এক দিনে সর্বোচ্চ ব্যক্তির করোনা শনাক্ত হয়েছে এবং করোনাভাইরাসে সংক্রমিত হয়ে সর্বোচ্চ ব্যক্তি মারা গেছেন। গত ২৪ ঘণ্টায় ৩ হাজার ৪৭১ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। একই সময়ে মারা গেছেন ৪৬ জন। সব মিলে দেশে করোনা শনাক্তের সংখ্যা ৮০ হাজার ছাড়াল। দেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ পরিস্থিতি নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত অনলাইন ব্রিফিংয়ে গতকাল শুক্রবার এমন তথ্য জানানো হয়। সব মিলে দেশে করোনা শনাক্ত হয়েছে ৮১ হাজার ৫২৩ জনের। মৃত্যু হয়েছে ১ হাজার ৯৫ জনের। নতুন মৃত্যু হওয়া ৪৬ জনের মধ্যে ৩৭ জন পুরুষ ও ৯ জন নারী। গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ৫০২ জন। এ নিয়ে সর্বমোট ১৭ হাজার ২৫০ জন সুস্থ হয়েছেন। অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা জানান, নমুনা পরীক্ষায় আজ শনাক্তের হার ২১ দশমিক ৭১ শতাংশ। আগের দিন এ হার ছিল ২০ দশমিক ২১ শতাংশ। আগের দিনের চেয়ে আজ শনাক্তের হার ১ দশমিক ৫ শতাংশ বেশি। অধ্যাপক নাসিমা সুলতানা জানান, করোনাভাইরাস আক্রান্তদের মধ্যে এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ১৭ হাজার ২৪৯ জন। গত ২৪ ঘন্টায় নতুন সুস্থ হয়েছেন ৫০২ জন। আজ(শুক্রবার) শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ২১ দশমিক ১৬ শতাংশ। আগের দিন এই হার ছিল ২১ দশমিক ৪৬ শতাংশ।আগের দিনের চেয়ে আজ সুস্থতার হার শূন্য দশমিক ৩ শতাংশ কম।

করোনাভাইরাসে
তিনি জানান, করোনাভাইরাস শনাক্তে গত ২৪ ঘন্টায় এ যাবৎকালের সর্বাধিক ১৬ হাজার ৯৫০টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। আগের দিন সংগ্রহ করা হয়েছিল ১৬ হাজার ১১৪টি। গতকালের চেয়ে আজ( শুক্রবার) ৮৩৬টি নমুনা বেশি সংগ্রহ করা হয়েছে। গত ২৪ ঘন্টায় দেশের ৫৯টি পরীক্ষাগারে নমুনা পরীক্ষা হয়েছে এ যাবৎকালের সর্বোচ্চ ১৫ হাজার ৯৯০টি। আগের দিন নমুনা পরীক্ষা হয়েছিল ১৫ হাজার ৭৭২টি। গত ২৪ ঘন্টায় আগের দিনের চেয়ে ২১৮টি বেশি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে। এ পর্যন্ত দেশে মোট ৪ লাখ ৭৩ হাজার ৩২২টি নমুনা পরীক্ষা হয়েছে । তিনি জানান, করোনায় মৃত ৪৬ জনের মধ্যে পুরুষ ৩৭ জন, নারী ৯ জন। বয়স বিবেচনায় ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে ১ জন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে ৬ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে ৩ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ১২ জন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে ১৫ জন, ৭১ থেকে ৮০ বছরের মধ্যে ৭ জন, ৮১ থেকে ৯০ বছরের মধ্যে ১ জন এবং ১০০ বছেরের ঊধর্ে্ব ১ জন রয়েছেন। এদের মধ্যে হাসপাতালে মারা গেছেন ৩২ জন, বাড়িতে মারা গেছেন ১৪ জন। বিভাগ বিশ্লেষণে দেখা যায়, ঢাকা বিভাগে ১৯ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ১১ জন, রাজশাহী বিভাগে ২ জন, সিলেট বিভাগে ৩ জন, বরিশাল বিভাগে ৩ জন, রংপুর বিভাগে ৫ জন, খুলনা বিভাগে ১ জন এবং ময়মনসিংহ বিভাগে ২ জন মারা গেছেন।
করোনা ভাইরাস

ডা. নাসিমা সুলতানা জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশনে নেয়া হয়েছে আরও ৪৩৬ জনকে এবং এ পর্যন্ত আইসোলেশনে নেয়া হয়েছে ১৪ হাজার ৭৩ জনকে। গত ২৪ ঘণ্টায় আইসোলেশন থেকে ছাড়া পেয়েছেন ১৮৮ জন এবং এ পর্যন্ত মোট ছাড়া পেয়েছেন ৫ হাজার ৬১ জন। বর্তমানে আইসোলেশনে রয়েছেন ৯ হাজার ১২ জন। দেশে মোট আইসোলেশন শয্যা রয়েছে ১৩ হাজার ২৮৪টি। এর মধ্যে রাজধানী ঢাকায় ৭ হাজার ২৫০টি এবং ঢাকার বাইরে বিভিন্ন হাসপাতালে ৬ হাজার ৩৪টি শয্যা রয়েছে। সারাদেশে আইসিইউ শয্যার সংখ্যা ৩৯৯টি এবং ডায়ালাইসিস ইউনিট রয়েছে ১১২টি।

 

 

Check Also

করোনায়

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৩৭ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৬৬৬

করোনাভাইরাস প্রতীকী ছবি দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় (আজ বুধবার সকাল ৮টা পর্যন্ত) আরও এক হাজার ৬৬৬ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *