Tuesday , August 11 2020
Breaking News
Home / বাংলাদেশ / দেশের সকল নাগরিকের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর প্রতি সততা, নিষ্ঠা, আন্তরিকতা ও সাহসিকতার সঙ্গে দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

দেশের সকল নাগরিকের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর প্রতি সততা, নিষ্ঠা, আন্তরিকতা ও সাহসিকতার সঙ্গে দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

anser

আনসার ও গ্রাম প্রতিরক্ষা বাহিনীর ৩৬তম জাতীয় সমাবেশের উদ্বোধন করে শেখ হাসিনা বলেছেন, জনগণের জানমালের হেফাজত করা আপনাদের পবিত্র দায়িত্ব। এ দায়িত্ব পালনে আপনারা সততা, নিষ্ঠা, আন্তরিকতা ও সাহসের সঙ্গে কাজ করবেন।

গতকাল বৃহস্পতিবার গাজীপুরের শফিপুরে আনসার একাডেমিতে এই অনুষ্ঠানে দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচন এবং সমপ্রতি হয়ে যাওয়া পৌরসভা নির্বাচনে এই বাহিনীর সাহসিকতার কথা স্মরণ করেন শেখ হাসিনা।

তিনি বলেন, জাতির যে কোনো প্রয়োজনে বরাবরই আপনারা যে সাহস, সততা ও একাগ্রতার পরিচয় দিয়েছেন তার জন্য আমি জাতির পক্ষ থেকে আন্তরিকভাবে আপনাদের সকল সদস্যকে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানাই। সামপ্রতিক সময়ে বিভিন্ন রাজনৈতিক কর্মসূচিতে সহিংসতা মোকাবেলায় আনসারের ভূমিকার কথাও প্রধানমন্ত্রী স্মরণ করেন। অপারেশন রেলরক্ষা ছাড়াও, মহাসড়কে নাশকতা ঠেকাতে আনসার বাহিনীর ভূমিকা ব্যাপকভাবে প্রশংসিত। সমপ্রতি পৌর নির্বাচনসহ দেশের সকল গুরুত্বপূর্ণ নির্বাচন নির্বিঘ্ন করতে আনসার বাহিনীর বিশাল পরিসরে উপস্থিতি বরাবরের মতই সকলের নজরে এসেছে। প্রধানমন্ত্রী বলেন, ১৯৪৮ সালের ১২ ফেব্রুয়ারি আনসার বাহিনী প্রতিষ্ঠার পর থেকেই বাঙালির ইতিহাসের প্রায় সকল ক্রান্তিকালে অবদান রেখেছে আসছে এ বাহিনী। ১৯৫৪ সালে যুক্তফ্রন্টের ২১ দফা এবং ১৯৬২ সালে আওয়ামী লীগের ১১ দফায় আনসার বাহিনীকে মিলিশিয়া বাহিনীতে পরিণত করার অঙ্গীকারের কথা ছিল বলে প্রধানমন্ত্রী তার বক্তব্যে উল্লেখ করেন। তিনি বলেন, সে সময় আনসারই ছিল এ অঞ্চলের একমাত্র স্বতন্ত্র বাহিনী।

প্রধানমন্ত্রী সকালে শফিপুরের আনসার একাডেমিতে পৌঁছালে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল এবং বাহিনীর মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মো. নাজিম উদ্দীন তাকে স্বাগত জানান। এরপর প্রধানমন্ত্রী প্যারেড পরিদর্শন এবং সশস্ত্র সালাম গ্রহণ করনে। আনসাররে উপ পরচিালক সাইফুল্লাহ রাসলেরে নতেৃত্বে কুচকাওয়াজে প্রধানমন্ত্রীকে অভবিাদন জানানো হয়। সাহসকিতা এবং সবোমূলক কর্মকান্ডরে জন্য এ অনুষ্ঠানে তনিজনকে বাংলাদশে আনসার পদক (সাহসকিতা), সাতজনকে প্রসেডিন্টে আনসার পদক (সাহসকিতা), একজনকে বাংলাদশে গ্রাম প্রতরিক্ষা দল (সাহসকিতা) মরণোত্তর পদক, ছয়জনকে বাংলাদশে আনসার পদক (সবো), ছয়জনকে বাংলাদশে গ্রাম প্রতরিক্ষা দল (সবো) পদক, ৩৭ জনকে প্রসেডিন্টে আনসার (সবো) পদক এবং ১৯ জনকে প্রসেডিন্টে গ্রাম প্রতরিক্ষা দল (সবো) পদক দওেয়া হয়। প্রধানমন্ত্রী সবাইকে পদক পরয়িে দনে। এছাড়া আইন-শৃঙ্খলা রক্ষা এবং অস্ত্র উদ্ধারে বশিষে অবদানরে জন্য আনসাররে ১৭ জনকে স্বর্ণপদক, ২৫ জনকে রৗপ্েযপদক এবং ২১ জনকে ব্রোঞ্জপদক দয়ো হয়। আইন-শৃঙ্খলা রক্ষা এবং অস্ত্র উদ্ধারে বশিষে অবদানরে জন্য ৪০ জন আনসার সদস্যকে দওেয়া হয় বশিষে পুরস্কার।

প্রধানমন্ত্রী বক্তব্যরে শুরুতেই আন্তর্জাতকি ভাষা দবিস উপলক্ষে ভাষা শহীদ সালাম, বরকত, রফকি, শফকিসহ ভাষা আন্দোলনে অংশগ্রহণকারী সকলরে কথা উল্লখে করে বলনে, ভাষা শহীদ আব্দুল জব্বার আনসার বাহনিীর গর্বতি সদস্য ছলিনে। বাঙালরি স্বাধীনতা আন্দোলনরে প্রতটিি পর্যায়ে আনসার বাহনিীর সদস্যগণ গুরুত্বপূর্ণ ভূমকিা পালন করছেনে। জাতরি পতিার ডাকে সাড়া দয়িে ১৯৭১ সালে এই বাহনিীর বহু সদস্য মহান মুক্তযিুদ্ধে অংশগ্রহণ করনে। মুক্তযিুদ্ধে আনসার বাহনিীর শহীদ ৬৭০ জন সদস্য এবং সে সময় অস্ত্রাগাররে ৪০ হাজার অস্ত্র মুক্তকিামী জনতার মধ্যে বতিরণরে কথাও স্মরণ করনে শখে হাসনিা। বাহনিীর ১২ জন সদস্য ১৯৭১ সালরে ১৭ এপ্রলি মহেরেপুররে মুজবিনগরে বাংলাদশেরে অস্থায়ী সরকারকে গার্ড অব অনার দয়িছেলি বলেও উল্লখে করনে তনিি।

আনসার এবং গ্রাম প্রতরিক্ষা দলরে উন্নয়নে আওয়ামী লীগ সরকাররে নওেয়া বভিন্নি পদক্ষপেরে কথাও প্রধানমন্ত্রী তার বক্তব্যে তুলে ধরনে। প্রধানমন্ত্রী বলনে, প্রায় ১৭২ কােটি টাকায় ১৫টি ব্যাটালয়িন সদর দপ্তরে আধুনকি কমপ্লক্সে নর্মিাণ দ্রুতগততিে এগয়িে যাচ্ছে। এর ফলে ব্যাটালয়িন সদস্যদরে আবাসন সমস্যার পাশাপাশি আনসার সদস্যদরে প্রশক্ষিণ মাঠ, খলোধুলা, অফসিসহ বভিন্নি সমস্যার সমাধান হবে। চারবার বাংলাদশে গমেসে চ্যাম্পয়িন হওয়ায় আনসার সদস্যদরে অভনিন্দনও জানান শখে হাসনিা। আনসার ও ভডিপিি উন্নয়ন ব্যাংকরে ঋণ গৃহীতার অর্ধকেরে বশেি নারী হওয়ায় নারীর ক্ষমতায়নে বর্তমান সরকাররে লক্ষ্য অর্জনে তা গুরুত্বপূর্ণ ভূমকিা পালন করছে বলেও মন্তব্য করনে শখে হাসনিা।

Check Also

মোল্লাহাটে বঙ্গমাতা

মোল্লাহাটে বঙ্গমাতার জন্মদিন পালিত

মিয়া পারভেজ আলম :  “বঙ্গমাতা ত্যাগ ও সুন্দরের প্রতীক” এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে জাতির জনকের …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *